Physical Health - শরীর স্বাস্থ্য

পেট ফোলাভাব, গ্যাস-অম্বলে অস্বস্তি, জানুন মুক্তির সহজ উপায়

gas

মূলত খাওয়া-দাওয়ার-ই অনিয়মে, তৈলাক্ত ও ভাজাপোড়া খাবার খাওয়ার কারণে, অত্যাধিক গ্যাস জমে পেট ফেঁপে বা ফুলে ওঠে। এ ছাড়া কার্বোহাইড্রেট জাতীয় খাবার বেশি খাওয়া হলে এবং হজমে সমস্যা হলে পেটে গ্যাসের সৃষ্টি হয়, যার কারণেও পেট ফেঁপে থাকে।

গ্যাসট্রিকের সমস্যায় ছোটো-বড়ো প্রায় সবাই ভুগে থাকেন। মূলত ফাস্ট ফুড-সহ বাইরের খাবারের প্রতি ঝোঁক বাড়ায় এ সমস্যায় পড়ছেন অনেকেই। ব্যস্ত জীবনযাত্রার এই যুগে গ্যাস, পেটের অসুখ এখন ঘরোয়া সমস্যা হয়ে দাঁড়িয়েছে। কখনও চোঁয়াঢেকুর, কখনও বা গলা-বুক জ্বালা করছে আবার কখনও পেট ব্যথা। এ সবই গ্যাসের সমস্যার লক্ষণ।

সম্প্রতি সেলিব্রিটি পুষ্টিবিদ তার ইনস্টাগ্রাম অ্যাকাউন্টে তথ্য শেয়ার করেছেন। যেখানে তিনি এমন তিনটি খাবারের কথা বলছেন, যা পেট ফাঁপা ও নিস্তেজ হওয়ার সমস্যা দূর করতে পারে। করিনা কপূর, আলিয়া ভট্ট, সারা আলি খানের মতো তারকারাও নির্দিষ্ট ডায়েটের বাইরে বেরোতে পছন্দ করেন না। ঘরোয়া উপায়ে কি ভাবে এর সমস্যা থেকে মুক্তি পাবেন! জেনে নিন পুষ্টিবিদের পরামর্শ-

ডাবের জল

ডাবের জল আপনার শরীরে ইলেক্ট্রোলাইটের ঘাটতি দ্রুত দূর করে পেট ফাঁপা এবং ফোলা থেকেও মুক্তি দিতে পারে। আপনার যদি ডিনার করতে দেরি হয়ে যায়, তাহলে ডাবের জল দিয়ে সকালটা শুরু করলে উপকার পাবেন। তবে মনে রাখবেন, নারকেল খেতে ভুলবেন না যেন। এই কারণেই ঠাকুমা-দিদিমারা থাকলে বলতেন, ডাবের জল খেতে। ডাবের জলে আছে প্রচুর পরিমাণে রিবোফ্লেবিন, নিয়াসিন, থায়ামিন পেরিডক্সিসহ বিভিন্ন পুষ্টিকর উপাদান। ডাবের জল পান করলে হজম শক্তি বাড়ে ও বদহজম থেকে মেলে মুক্তি । এটি বদহজম , গ্যাসট্রিক , আলসার , কোলাইটিস , ডিসেন্ট্রি এবং পাইলসের সমস্যা দূরীকরণে সাহায্য করে। এছাড়াও এটি আপনার স্ট্যামিনা বাড়াতেও কাজ করে।

​আখের রস

আখের রসের মিষ্টতা আপনার এই সমস্যাকে সম্পূর্ণরূপে দূর করতে পারে। ভারতে আখের রস বা আখ জন্ডিস রোগে ব্যবহৃত হয়। তুলসী পুজোর পরে যা দীপাবলির পরবর্তীতে হয়ে থাকে, সেখানে কেবল প্রসাদ হিসেবে শুধু আখ দেওয়া হয়। এর আসল লক্ষ্য হল এই যে, আপনার নিস্তেজতা দূর করা, পাশাপাশি আপনাকে সতেজ এবং শক্তিতে প্রাণবন্ত করে তোলা। এছাড়া এটি ত্বককে ডিটক্সিফাই করে। শুধু তাই নয়, আখের রসে গ্লাইকোলিক অ্যাসিড থাকে, যা প্রায়শই দামি পণ্যগুলিতে পাওয়া যায়। এটি শুধুমাত্র আপনার মুখের উজ্জ্বলতা বাড়ায় না, এটি আপনাকে ব্রণ থেকেও রক্ষা করে। আখে প্রচুর পরিমাণে অ্যান্টি-অক্সিডেন্ট রয়েছে। দেহের টক্সিন নির্মুল করে প্রচুর এনার্জি বুস্ট করবে এই সুস্বাদু পানীয়। শুধু তাই নয়, আখের রসে প্রচুর ফাইবার এবং মাইক্রো-মিনারেলস রয়েছে।

​গুলকন্দ

গুলকন্দ হল গোলাপের পাতা, চিনি এবং কিছু ভেষজ দিয়ে তৈরি একটি মিশ্রণ যা আপনাকে অ্যাসিডিটি-সহ অনেক সমস্যা থেকে মুক্তি দিতে পারে। অতিরিক্ত খাওয়া এবং ঘুমের অভাব আপনার অন্ত্রের ক্ষতি করার জন্য যথেষ্ট। তবে এমন পরিস্থিতিতে গুলকন্দের সেবন, এই সমস্যা থেকে অনেকটা মুক্তি দিতে পারে। এছাড়াও, আপনি সহজেই এটি বাজারে পেয়ে যাবেন। গুলকন্দ, দুধের সঙ্গে মিশিয়ে বা সরাসরি খেতে পারেন। এটি আপনার অন্ত্রের সমস্যা থেকে দ্রুত মুক্তি দিতে পারে।

Click to comment

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Most Popular

To Top